নিউজ ডেস্ক: কর্মব্যস্ত দিনের শেষে বিছানায় গা এলিয়ে শান্তির ঘুম কে না চায়। সাত থেকে আট ঘণ্টা ঘুমের পর ফের চাঙ্গা হয়ে নতুন উদ্যোমে আবার কাজে লেগে পড়া। এ স্বপ্ন তো আমরা অনেকেই দেখি। কিন্তু বাস্তবে আর তেমনটা হয়ে ওঠে কোথায়? বিছানায় শুয়েও নেই শান্তির ঘুম।
তাহলে উপায় কী? ভালো ঘুমের চাবিকাঠি আসলে কী? এ ধরনের ভাবনা আমাদের মাথায় ঘুরপাক খেতেই পারে। তবে বিছানায় শোয়ার মিনিট খানেকের মধ্যেই ঘুম আসার একটি অত্যন্ত সহজ উপায় আছে।

একটি বিশেষ শ্বাসক্রিয়ার অভ্যাস করতে পারলেই তাড়াতাড়ি ঘুম এসে যাবে, গ্যারান্টি! যে অভ্যাসের পোশাকি ভাষা ‘৪-৭-৮’। যাদের রাতে ঘুম আসে না তাদের জন্য এই সহজ পথ বাতলেছেন লেখক ডক্টর অ্যান্ড্রু ওয়েইল। ৬০ সেকেন্ডের মধ্যে ঘুমের দেশে পৌঁছে যেতে কীভাবে নিঃশ্বাস নিতে হবে? আসুন জেনে নেই-

ডক্টর অ্যান্ড্রু ওয়েইল জানান, প্রথমে নাক দিয়ে চার সেকেন্ড শ্বাস নিন। এরপর সাত সেকেন্ড শ্বাসক্রিয়া আটকে রাখুন। আর আগামী ৮ সেকেন্ড মুখ দিয়ে আস্তে করে নিঃশ্বাস ত্যাগ করুন। যতক্ষণ পর্যন্ত ঘুম না আসে এভাবেই শ্বাসক্রিয়া চালান। এর ফলে হৃদপিণ্ডে কেমিক্যালের প্রভাব কমে যায়। আর তাতেই চটজলটি ঘুম এসে যায়। খুব বেশি সময় লাগবে না, মিনিট খানেকের মধ্যেই এ পদ্ধতিতে ঘুমিয়ে পড়বেন।

অন্য এক লেখক আলিনা গোঞ্জালেজ বলেন, এমন অদ্ভুত অভ্যাসে তাড়াতাড়ি ঘুম আসার বিষয়টি আমার কিছুতেই বিশ্বাস হয়নি। একপ্রকার পরীক্ষা করতেই ট্রিকটা করে দেখি। কিন্তু পরের দিন সকালে উঠে মনেই করতে পারলাম না, শেষ আট সেকেন্ডের পর আর জেগেছিলাম কিনা। এতটাই গভীর ঘুম এসে গিয়েছিল। এই টেকনিকটা যেন ড্রাগের মতো কাজ করল।

তিনি আরো বলেন, আসলে এভাবে নিঃশ্বাস-প্রশ্বাস নিলে দেহ ও মন- দুই শান্ত হয়ে যায়। আর উত্তেজনা থেকে আপনাকে অনেকখানি দূরে নিয়ে যাবে। তাই রাতে নিশ্চিন্ত ভাল ঘুমের জন্য একবার ‘৪-৭-৮’ ট্রিকটি ট্রাই করে দেখতেই পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *