সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২১

হাইজিন মেনে সাজুন

জবাবদিহি ডেস্ক : নিজের লিপস্টিক বা আইলাইনার কি অন্য কারও সঙ্গে শেয়ার করবেন না। এই অভ্যাসই ডেকে আনতে পারে রোগবালাই।

তাই হাইজিন মেনেই মেকআপ করুন : মেকআপ প্রডাক্ট কেনা থেকে শুরু করে তার ব্যবহারবিধি ঠিক না জানলে রোগবালাই বাসা বাঁধতে পারে শরীরে। তাই মেকআপেও হাইজিন বজায় রাখা জরুরি।

কেনার সময়ে : লিপস্টিক, ব্লাশার, ফাউন্ডেশন… যে কোনও মেকআপ প্রডাক্ট কেনার সময়ে সিল্ড প্যাক কিনবেন। অনেক সময়ে দোকানে টেস্টার থেকেই অনেকে মেকআপ প্রয়োগ করে দেখেন, তাকে মানাচ্ছে কি না। খেয়াল রাখতে হবে, ওই টেস্টার কিন্তু আপনি ছাড়াও অনেকে ব্যবহার করেছে। ফলে যদি কারও স্কিন ডিজিজ থাকে, তা ছড়ানোর প্রবণতা থাকে। তাই টেস্টারে ড্রপার থাকলে তা ব্যবহার করুন। অন্যথায় নিজের চোখেই ভরসা রাখা ভাল।

হাত ধুয়ে মেকআপ : মেকআপ করার আগে হাত ধুয়ে নেবেন। এমনকি কোনও মেকআপ আর্টিস্টের কাছে সাজলেও তাঁকে হাত ধুয়ে নিয়ে বা হ্যান্ড স্যানিটাইজার লাগিয়ে মেকআপ শুরু করতে বলুন। অনেকেরই ধূমপানের নেশা থাকে। আবার অনেকে মোবাইল ঘাঁটেন। সে ক্ষেত্রে আপনার ত্বক একাধিক ব্যাকটিরিয়ার সংস্পর্শে আসবে।

প্যালেট ব্যবহার করুন : সরাসরি লিপস্টিক বা ব্লাশার থেকে ব্রাশ দিয়ে মেকআপ অ্যাপ্লাই করে আবার সেই ব্রাশ প্রডাক্টে ডুবিয়ে ব্যবহার করা ঠিক নয়। তার চেয়ে বরং একটা আলাদা প্যালেট রাখুন। মেকআপ শুরুর আগে সেই প্যালেট স্যানিটাইজ করে নিয়ে সেখানেই মেকআপ মেশান ও ব্যবহার করুন। মেকআপের বটলে বা কৌটোয় আঙুল ঢুকিয়ে প্রডাক্ট বার করবেন না। বরং প্যালেট নাইফ ব্যবহার করতে পারেন।

এক্সপায়ারি ডেট খেয়াল রাখুন : প্রত্যেক মেকআপ প্রডাক্টের এক্সপায়ারি ডেট থাকে। মাসকারা তিন থেকে ছ’মাস, ফাউন্ডেশন ও কনসিলার ছ’মাস থেকে এক বছর, পাউডার বেসড ব্লাশার, আইশ্যাডো আর লিপস্টিক দু’বছর এবং লিপ। গ্লস এক বছর পর্যন্ত ভাল থাকে।

শেয়ার করবেন না : বিয়েবাড়ি বা অফিসে, কলেজে বন্ধুরা লিপস্টিক, কাজল শেয়ার করেই থাকে। মেকআপ হাইজিন মেনে চললে তা কিন্তু উচিত নয়। একান্তই শেয়ার করতে হলে বন্ধুকে দেওয়ার আগে মুছে আর ব্যবহারের পরে আবার মুছে রাখতে হবে।

তবে শেয়ার না করলেই ভাল। সংক্রমণের ভয় থাকে। মনে রাখবেন, একজমিা, কনজাংক্টিভাইটিস ইত্যাদি অসুখ খুবই ছোঁয়াচে। এ ছাড়া ব্রণর সমস্যাও আছে। ফলে বন্ধুবান্ধবের সঙ্গে মেকআপ প্রডাক্ট শেয়ার করার আগে সচেতন হওয়া জরুরি।
রাখবেন কোথায়: লিপস্টিক, কাজল ইত্যাদি মেকআপ প্রডাক্ট ফ্রিজে রাখতে পারেন। এতে ব্যাকটিরিয়ার গ্রোথ হয় না। লিপস্টিক ভালও থাকে দীর্ঘদিন।

মেকআপ পেনসিল, বিশেষত রঙিন কাজল বা লিপ ক্রেয়ন পরিষ্কার রাখতে তা শার্প করে নিতে পারেন। এতে উপরের স্তর পরিষ্কার হয়ে যাবে।
উৎসব, অনুষ্ঠান, অফিস… যেখানেই যান, সাজার সময়ে মাথায় রাখবেন হাইজিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *