সাংবাদিকের মুখে প্রস্রাব করলেন পুলিশ কর্মকর্তা


জবাবদিহি ডেস্ক : পুলিশের সঙ্গে তর্ক করায় এক সাংবাদিককে বেধড়ক মারধর করে হাজতে ভরে মুখে প্রস্রাব করেছেন এক পুলিশ কর্মকর্তা। মঙ্গলবার রাতে ভারতের উত্তর প্রদেশের পশ্চিমাংশের শামলিতে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, মঙ্গলবার রাতে ধীমানপুরায় একটি মালগাড়ির লাইনচ্যুত হওয়ার ঘটনার খবর করতে গিয়েছিলেন স্থানীয় একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলের এক সাংবাদিক। এ সময় জিআরপির অভিযুক্ত স্টেশন হাউস অফিসার (এসএইচও) রাকেশ কুমারের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়েন এ সাংবাদিক। এতে ঐ পুলিশ কর্মকর্তা সাংবাদিককে চড়, কিল, ঘুঁষি মারেন। এ সময় তার হাত ক্যামেরা কেড়ে নিয়ে আছাড়ে ভেঙ্গে ফেলেন রাকেশ। সাংবাদিকের জামার কলার ধরে টেনে হিচড়ে হাজতে নিয়ে তার মুখে প্রস্রাব করেন তিনি। সারা রাত সাংবাদিককে হাজতে আটকে রখে নির্যাতন করা হয় বলে জানা যায়।

এ ঘটনার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে বুধবার ছাড়া পান ভুক্তভোগী সাংবাদিক। পরে জিআরপির অভিযুক্ত স্টেশন হাউস অফিসার (এসএইচও) রাকেশ কুমার ও কনস্টেবল সঞ্জয় পওয়ারকে বরখাস্ত করা হয়েছে বলে জানান উত্তর প্রদেশ পুলিশের ডিজি ও পি সিংহ।

ঐ সাংবাদিক পুলিশের কাছে বিষয়টি নিয়ে একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযোগে তিনি উল্লেখ করেন, সাদা পোশাকে ছিলেন জিআরপির পুলিশকর্মীরা। হাজতে ঢুকানোর সময় তার জামাকাপড় খুলে নেওয়া হয়। পরে মুখে প্রস্রাব করেন পুলিশকর্মীরা। ঘটনাস্থলে থাকা অন্য সাংবাদিকরা এ সময় বাধা দিতে গেলে তাঁদের সঙ্গেও তর্ক করেন জিআরপির অভিযুক্ত এ স্টেশন হাউস কর্মকর্তা। সূত্র: আনন্দ বাজার।

0 30

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আজকের সংবাদ শিরোনাম :