আগস্ট ৩, ২০২১

শহীদ মিনারে প্রবেশে মানতে হবে যেসব নিয়ম

১ min read
শহীদ মিনারে প্রবেশে মানতে হবে যেসব নিয়ম

শহীদ মিনারে প্রবেশে মানতে হবে যেসব নিয়ম

প্রতিবছরের মতো এবারও ২১ শে ফেব্রুয়ারি শহীদ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের লক্ষ্যে ব্যাপক কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। তবে করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় এবার যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে দিবসটি সুশৃঙ্খলভাবে পালন এবং বিড়ম্বনা এড়াতে কিছু সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা দিয়েছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।

ডিএমপির নির্দেশনায় বলা হয়েছে, কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে প্রবেশের ক্ষেত্রে রাজধানীর পলাশী ক্রসিং, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সলিমুল্লাহ মুসলিম (এসএম) এবং জগন্নাথ হলের সামনের রাস্তা ব্যবহার করতে হবে। অপরদিকে শহীদ মিনার থেকে বের হতে দোয়েল চত্বরের রাস্তা অথবা ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের সামনের রাস্তা ব্যবহার করতে হবে। নির্দেশিত রাস্তাগুলো ছাড়া অন্য কোনো রাস্তা ব্যবহার করে শহীদ মিনারে প্রবেশ বা সেখান থেকে বের হওয়া যাবে না।

নির্দেশনায় আরও বলা হয়েছে, ২০ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৬টা থেকে ২১ ফেব্রুয়ারি দুপুর ২টা পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় যত্রতত্র অনুপ্রবেশ বন্ধের লক্ষ্যে নীলক্ষেত, পলাশী মোড়, ফুলার রোড, বকশীবাজার, চাঁনখারপুল, শহীদুল্লাহ হল, দোয়েল চত্বর, জিমনেশিয়াম, রমনা চত্বর, হাইকোর্ট, টিএসসি ও শাহবাগ ইন্টারসেকশনগুলোতে রোড ব্লক দিয়ে যান ডাইভারশন দেওয়া হবে।

যেসব রাস্তা বন্ধ থাকবে:

বকশিবাজার-জগন্নাথ হল ক্রসিং সড়ক। চাঁনখারপুল-রমনা চত্বর ক্রসিং সড়ক। টিএসসি-শিববাড়ী মোড় ক্রসিং। উপাচার্য ভবন-ভাস্কর্য ক্রসিং (ফুলার রোড)।

এদিকে ২০ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৬টা থেকে ২১ ফেব্রুয়ারি দুপুর ২টা পর্যন্ত জনসাধারণের ও সবধরনের যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণে ট্রাফিক নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

২১ ফেব্রুয়ারি ভোর ৫টায় সায়েন্সল্যাব থেকে নিউমার্কেট ক্রসিং, কাঁটাবন ক্রসিং থেকে নীলক্ষেত ক্রসিং এবং ফুলবাড়িয়া ক্রসিং থেকে চাঁনখারপুল ক্রসিং পর্যন্ত প্রভাতফেরি উপলক্ষে সব ধরনের যাত্রীবাহী যান প্রবেশ বন্ধ থাকবে।

পার্কিং ব্যবস্থা:

১. একুশের প্রথম প্রহরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় জিমনেশিয়াম মাঠে ভিআইপি গাড়িগুলোর জন্য পার্কিং ব্যবস্থা থাকবে।

২. সাধারণ নাগরিকরা নীলক্ষেত-পলাশী, পলাশী-ঢাকেশ্বরী সড়কগুলোতে গাড়ি পার্কিং করতে পারবেন।

সাধারণ নির্দেশনাবলী:

১. বর্তমান করোনা মহামারি পরিস্থিতিতে কবরস্থান এবং শহীদ মিনারে যারা শ্রদ্ধা জানাতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করবেন তাদের মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক।

২. কবরস্থান এবং শহীদ মিনারে যারা শ্রদ্ধা জানাতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করতে যাবেন তাদের রাস্তায় বসা বা দাঁড়ানো থেকে বিরত থাকতে বলা হয়েছে।

৩. সর্বসাধারণের চলাচলের সুবিধার জন্য রাস্তায় কোনো প্রকার প্যান্ডেল তৈরি করা যাবে না।

৪. শহীদ মিনারে প্রবেশের ক্ষেত্রে আর্চওয়ের মাধ্যমে তল্লাশি করা হবে। এক্ষেত্রে সবাইকে সারিবদ্ধভাবে প্রবেশ করতে অনুরোধ করা হয়েছে।

৫. শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ থেকে প্রচার করা নির্দেশনা নাগরিকদের মেনে চলার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

৬. কোনো ধরনের ব্যাগ সঙ্গে বহন করা যাবে না।

৭. যেকোনো পুলিশি সহয়তা প্রয়োজনে শহীদ মিনার এলাকায় স্থাপিত অস্থায়ী পুলিশ কন্ট্রোল রুমে যোগাযোগের জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *