আগস্ট ৩, ২০২১

ধামইরহাটে শত্রুতার বিষে নষ্ট হলো কৃষকের ধান ও বীজতলা

ধামইরহাটে শত্রুতার বিষে নষ্ট হলো কৃষকের ধান ও বীজতলা

ধামইরহাটে শত্রুতার বিষে নষ্ট হলো কৃষকের ধান ও বীজতলা

ধামইরহাট (নওগাঁ) প্রতিনিধি : নওগাঁর ধামইরহাটে জমি দখল করার বিশেষ কৌশল এখন ধান পুড়ে দেয়া।

এই রকমই ন্যাক্কার জনক ঘটনা ঘটেছে উপজেলার চাঁনকুড়ি গ্রামে। প্রতিপক্ষরা রাতের আধারে আগাছানাশক স্প্রে করে ৩৭ শতাংশ জমির ধান ও বীজতলা পুরোটাই বিনষ্ট করে দিয়েছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, কাটনা মৌজার আর ৮৩ নম্বর খতিয়ানভুক্ত আর,এস ১৮৮, ২৭৯ ও ৩৩ নম্বর দাগে নেউটা গ্রামের আকতার বানু তার পৈত্রিক সূত্রে প্রাপ্ত ৩৭ শতাংশ জমি দীর্ঘপ্রায় ৩ যুগ ধরে ভোগ দখলে নিয়ে চাষাবাদ করে আসছে।

এমতাবস্থায় উক্ত সম্পত্তিতে চানকুড়ি গ্রামের মৃত রসুল সরদারের ছেলে বাবুল হোসেন গং গত ১৪ মার্চ রাতের আধারে আগাছানাশক স্প্রে করে জমির সকল ধানের চারা বিনষ্ট করে দেয়। আগাছানাশক স্প্রেকালে প্রতিবেশী নুর হোসেন ঘটনার প্রতিবাদ কররে বাবুল হোসেন গং তাকে হুমকি দিলে সে বিষয়টি জমির মালিকদের জানায়।

১৫ মার্চ সকালে জমিতে গেলে আগাছানাশক স্প্রে করার ফলে জমি ধান ও বীজতলা বিবর্ণরুপ দেখা যায়, এতে জমির মালিকের। এ ঘটনায় আকতার বানু বাদী হয়ে ধামইরহাট থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে। তবে অভিযুক্ত বাবুল হোসেন আগাছানাশক স্প্রে বিষয়টি কৌশলে এড়িয়ে গিয়ে খতিয়ানসূত্রে জমির আমিই মালিক বলে দাবী করেন।

ধামইরহাট থানার ওসি (তদন্ত) আবদুল মমিন জানান, অভিযোগ হাতে পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *