আগস্ট ৩, ২০২১

কচুয়ার বাজারে আসতে শুরু করেছে রসালো ফল তরমুজ

কচুয়ার বাজারে আসতে শুরু করেছে রসালো ফল তরমুজ

কচুয়ার বাজারে আসতে শুরু করেছে রসালো ফল তরমুজ

কচুয়া (চাঁদপুর)সংবাদদাতা : রসালো ফল তরমুজ কে না পছন্দ করে। কেউ কেউ মজা করে ‘গরমের আরাম’ বলেও অভিহত করেন এই মৌসুমী ফলটিকে। বাজারে গেলেই চোখে পড়ছে গ্রীষ্মের এই রসালো ফল।

গত কয়েক দিন ধরেই কচুয়ার বাজারে আসছে শুরু করেছে রসালো ফল তরমুজ। তবে এখন পর্যন্ত গরম কম হওয়ার কারণে চাহিদা তেমন ভাড়ছে না।
কচুয়া বাজারে বিভিন্ন ফলের দোকান ও সড়কের মোড়ে রাসালো ফল তরমুজ বিক্রি করতে দেখাগেছে। ফল ব্যবসায়ীরা অন্য ফলের সাথে তরমুজেরও পসড়া সাজিয়েছেন। কিন্তু অনেকেই আগ্রহ করে কিনতে দেখাগেছে।

ব্যবসায়ীরা বলেন, কচুয়ায় যে তরমুজ পাওয়া যায় তার বড় অংশই আসে চাঁদপুর কুমিল্লা ও নোয়াখালী থেকে। এ তরমুজ খুব বেশি দিন পাওয়া যায় না। দেখতে দেখতেই তরমুজের মৌসুম শেষ হয়ে যায়। তরমুজ বেশি দিন মাঠে রাখা যায় না।

তাই অনেক চাষি পরিপক্ক (বাতি) হওয়ার আগেই বাজারজাত শুরু করেন। যে কারণে প্রথমদিকে আসা তরমুজ তেমন মিষ্ট হয় না। তবে এখন বাজারে যে তরমুজ আসছে তার প্রায় সবই অপরিপক্ক ও পরিপক্ক , সে কারণে মিষ্টি কম ও বেশি হবে। তবে আরও ১৫ থেকে ১৬ দিন পরে যে তরমুজ আসবে তা অনেকটা পরিপক্ক ও মিষ্টি হবে।

কচুয়া বাজারে বেশীরভাগ তরমুজ আসে দক্ষিণাঞ্চল থেকে ও পূর্বঞ্চাল থেকে মালবাহী ট্রাক দিয়ে । বিশেষ করে কচুয়া বিশ্বরোড কচুয়া উত্তর বাজার ও কচুয়া দক্ষিণ বাজারে পাইকারী আড়ৎগুলোতে মালবাহী ট্রাক দিয়ে রাতে ও দিনে রসালো ফল তরমুজের বড় বড় চালান আসতে শুরু করেছে।

কচুয়া বিশ্বরোডের আড়ৎ ব্যবসায়ী মো: মোশারেফ হোসেন জানান, এখন বড় ও ছোট আকারের রসালো সাইজের তরমুজ আসছে গড়ে প্রতি পিস তরমুজের দাম ১২০ থেকে ১৫০ টাকা। তবে বাজারে বড় সাইজের দাম অনেক বেশি পড়বে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *